পূর্বধলায় ব্যক্তিমালিকানা জায়গায় আশ্রয়ণ প্রকল্প নির্মাণ

প্রকাশিত: ১২:২৫ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৮, ২০২১

পূর্বধলা (প্রতিনিধি): নেত্রকোণার পূর্বধলা উপজেলায় হিন্দু ধর্মের পরিবারের জায়গা দখল করে প্রধানমন্ত্রীর উপহার ও মুজিববর্ষ উপলক্ষে আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর আওতায় ঘর নির্মাণ করেছে উপজেলা প্রশাসন। পূর্বধলা সদর ইউনিয়নের নারায়নডহর এলাকায় ১২টি অসহায় পরিবারের মধ্যে ঘর বিতরণ করা হয়েছে। এই ঘরগুলোর মধ্যে ১.৫ শতাংশ ব্যক্তি মালিকানা জায়গা দখল করে প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হয়েছে।

গতকাল শনিবার সকাল থেকে দিনব্যাপি ইউনিয়ন ভূমি কর্মকর্তা অমল চন্দ্র দাসের নেতৃত্বে মাপজোখে উপস্থিত ছিলেন সার্ভেয়ার জাহাঙ্গীর আলম, উপজেলা নির্বাহী অফিসার উম্মে কুলসুম, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহিদুল ইসলাম সুজন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাসরিন বেগম সেতু, ভূমির মালিকসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ। এ সময় ভূমি মাপজোখ করে দেখা যায় প্রধানমন্ত্রীর উপহার ও মুজিববর্ষ উপলক্ষে আশ্রয়ণ প্রকল্প মৃত সুধীর চন্দ্র দাসের ১.৫ শতাংশ ভূমি দখল করে নির্মাণ করা হয়েছে।

এর আগে নারায়নডহর গ্রামের মৃত সুধীর চন্দ্র দাসের ছেলে আনন্দ চন্দ্র দাস গত ১২ জুলাই নেত্রকোনা জেলা প্রশাসক বরাবরে ভূমি জোর দখল করে আশ্রয়ন প্রকল্প বাস্তবায়নের অভিযোগ করেন। তারপর গত ১৫ জুলাই বৃহস্পতিবার সরেজমিনে তদন্তে আসেন নেত্রকোনা অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মোহাম্মদ মনির হোসেন।

ঐ সময় উপস্থিত ছিলেন পূর্বধলা উপজেলা নির্বাহী অফিসার উম্মে কুলসুম, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহিদুল ইসলাম সুজন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাসরিন বেগম সেতু, পূর্বধলা সদর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আফতাব উদ্দিন, অভিযোগকারী আনন্দ চন্দ্র দাস, স্থানীয় রামজিৎ চৌহান, সেবান চন্দ্র দাস, প্রিয়জিৎ চন্দ্র দাস, জতিন্দ্র চন্দ্র দাস, মুকুল চন্দ্র দাস, আব্দুর রহিম প্রমুখ। সে সময়ের সিদ্ধান্ত মোতাবেক শনিবার ভূমি পরিমাপ করা হয় এতে দেখা যায় মৃত সুধীর চন্দ্র দাসের ১.৫ শতাংশ ভূমি দখল করে আশ্রয়ণ প্রকল্প নির্মাণ করা হয়েছে।

এ বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে উপজেলা নির্বাহী অফিসার উম্মে কুলসুম বলেন, প্রকল্প নির্মাণের সময় কেউ প্রতিবাদ করেনি, জেলা প্রশাসক বরাবরে অভিযোগের প্রেক্ষিতে ভূমি পরিমাপ করে দেখা যায় হিন্দু পরিবারের ১.৫ শতাংশ জমি আশ্রয়ন প্রকল্পের অধীনে রয়েছে। উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কথা দিয়েছেন ভূমির মালিকের নিকট থেকে ঐ ১.৫ শতাংশ জমি ক্রয় করে আশ্রয়ণ প্রকল্পে দান করবেন।